বুধবার, সেপ্টেম্বর ২৮, ২০২২

কোভিড-১৯ ব্যাটার এটাই যেন হয় শেষ জন্মদিন

হাঁটি হাঁটি পা পা করে বাংলাদেশে কোভিড–১৯–এর এক বছর হতে চলল। এ সময় আমার মতো অনেকেই ঘরবন্দী হয়ে লুঙ্গির ভেতর দিনের পর দিন কাটিয়েছেন। আর কী কী হয়েছে এই করোনা–বছরে? যাপিত জীবনে বড় কোন কোন ওলট–পালট ঘটেছে? এসব হিসাব করার মতো প্রতিভা বা হিম্মত কোনোটাই আমার নেই। তবু আকাশ–পাতাল ভাবি, এক বছরে অন্যে ভাবেনি, এমন কিছু আছে কী। ঘরের মধ্যে বন্দী থেকে স্বামী-স্ত্রীর সোহাগ বেড়ে যাওয়া কিংবা উল্টোটি ঘটা—এসব ‘গোপন’ কথা জানাজানি হয়েছে আগেই। রবীন্দ্রনাথ তো ঘটনা অনেক আগেই টের পেয়েছিলেন, তাই লিখে রেখে গেছেন ‘কাছে থেকে দূর রচিল’। অবশ্য জন্মহার বেড়েছে কি না, সে তথ্য পাইনি। রেস্তোরাঁ, বিনোদন পার্ক, বিয়েশাদি, জন্মদিন, পাহাড়, সমুদ্র—সব বন্ধ ছিল একটা সময়। বিনোদনের অন্য উপায় তো ছিল না। মনোবিজ্ঞানীরা এ বিষয়ে সঠিক পরিসংখ্যান দিতে পারবেন মনে হয়।করোনাকালে কোনো কোনো স্বামী অভিযোগ করেন, ওই সময়ে অনভ্যস্ত শরীরে গৃহস্থালির কাজ করতে করতে তাদের শারীরিক অবনতির সঠিক মূল্যায়ন হয়নি। গিন্নিরা কেউ কেউ অবশ্য গৃহকর্মে স্বামীর অংশগ্রহণকে অভিনন্দিত করেছেন, একটু সক্রিয় নারীবাদীরা নারী-পুরুষের সমানাধিকারের ক্ষেত্রে একে সতর্ক ইতিবাচকতার সঙ্গে গ্রহণ করেছেন। অবশ্য এই ‘অস্বাভাবিক’ পরিস্থিতি বেশি দিন লাস্টিং করেনি, অচিরেই বাঙালি-অবাঙালিসমেত বিশ্ববাসী আগের অবস্থায় ফিরে স্বস্তির নিশ্বাস ফেলেছে। খুন-ধর্ষণ, সড়ক দুর্ঘটনা আবার আগের স্বাভাবিকতায় ফিরে এসেছে। কোনো এক নচ্ছার অবিশ্বাসী অবশ্য বলেছিল, কোভিড-১৯ ভাইরাসের লেজে কোনো মহামানব বাঁধা নেই যে পৃথিবীটাকে পাল্টাতে নামবে। কোভিড–১৯-এর জন্মদিনে, মানে প্রথম বর্ষপূর্তিতে মনে হচ্ছে সে দুর্মুখের কথাই বোধ হয় সত্যি হলো। আবার আমরা ফিরছি স্বাভাবিকতায়, থুক্কু নতুন স্বাভাবিকতায়—আমাদের স্বস্তির, সুস্থির জীবনে। শুধু চাই, কোভিড-১৯ ব্যাটার এটাই যেন হয় শেষ জন্মদিন।

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Stay Connected

22,042FansLike
3,505FollowersFollow
0SubscribersSubscribe
- Advertisement -spot_img

Latest Articles