বৃহস্পতিবার, অক্টোবর ২১, ২০২১
সর্বশেষঃ
*রাজনৈতিক স্বার্থে একটি গোষ্ঠী ধর্মকে অপব্যবহার করে বিভাজন তৈরি করতে চায়*কক্সবাজারের রোহিঙ্গা ক্যাম্পে অভিযান, অস্ত্রসহ ৭ রোহিঙ্গা গ্রেপ্তার*সারা দেশে বৃষ্টির পূর্বাভাস*সমুদ্রসীমায় ঢোকার সময় ভারতীয় সাবমেরিনের পথ আটকানোর দাবি পাকিস্তানের*করোনার টিকা না পেয়ে সোহরাওয়ার্দী মেডিকেলে প্রবাসীদের বিক্ষোভ*বিশ্বকাপে টিকে রইল বাংলাদেশ*সাবেক প্রধান বিচারপতি এস কে সিনহাসহ ১১ জনের রায় আগামীকাল*ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.) উপলক্ষ্যে চট্টগ্রামে দেশের বৃহত্তম ধর্মীয় শোভাযাত্রা*বিশ্বে কোভিড সংক্রমণ ও মৃত্যু কমেছে – ডব্লিউএইচও*ভারতে উত্তরাখণ্ডে ভারী বৃষ্টিতে সৃষ্ট বন্যায় নিহত বেড়ে ৪৬

চলতি মাসেই ডেঙ্গু আক্রান্ত ছাড়িয়েছে সাড়ে ৩ হাজার

আগস্টের প্রথম ১৬ দিনেই ডেঙ্গু আক্রান্ত ছাড়িয়েছে সাড়ে ৩ হাজার। মশক নিধন কার্যক্রম শুরু না হলে এ মৌসুমে ডেঙ্গু পরিস্থিতির আরও অবনতি হওয়ার আশঙ্কা করছেন চিকিৎসকরা।

মহামারির বেসামাল পরিস্থিতির মধ্যে নতুন আতঙ্ক ডেঙ্গু। রাজধানী জুড়ে এডিস মশার তাণ্ডবে ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালের বিছানায় অসহ্য যন্ত্রণায় দুই সিটির বাসিন্দারা।

চলতি মৌসুমে এ পর্যন্ত ডেঙ্গু আক্রান্তের সংখ্যা সাড়ে ৬ হাজার ছাড়িয়েছে। ডেঙ্গুর উপসর্গ নিয়ে ২৫ জনের মৃত্যুর তথ্য দিয়েছে রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান আইইডিসিআর।

মিরপুরের এক বাসিন্দা বলেন, আমাদের মিরপুর, কাজীপাড়া এলাকায় অনেক মশা। বাসায় সব সময় এরোসল, মশার কয়েল, মশারি এত কিছু ব্যবহার করার পরেও মশা নিয়ন্ত্রণ করা যাচ্ছে না।
 
অন্যদিকে রাজধানীতে ডেঙ্গু হটস্পট হিসেবে ৫টি এলাকা চিহ্নিত হলেও বর্তমানে এ তালিকায় যোগ হচ্ছে নতুন নতুন এলাকা।
 
এক চিকিৎসক বলেন, আমাদের হাসপাতালের ডেঙ্গুর অবস্থা এখন বেশ ভয়াবহ। প্রতিদিনই ডেঙ্গু রোগীর সামাল দিয়ে ভয়াবহ পরিস্থিতির শিকার হচ্ছি। হঠাৎ করেই রোগীগুলো খারাপ হয়ে যাচ্ছে।
 
এমনকি ২০১৯ সালে ডেঙ্গু ও চিকুনগুনিয়া সংক্রমণের ভয়াবহ পরিস্থিতির জন্য দায়িত্বশীল সংস্থা দুটির আংশিক অবেহলার কথা উঠে এসেছে উচ্চ আদালতে নিদেশে গঠিত বিচার বিভাগীয় তদন্ত কমিটির প্রতিবেদনে।
ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল অমিত দাশগুপ্ত বলেন, মশক নির্মূলের ক্ষেত্রে দুই সিটি করপোরেশনের আংশিক দায় আছে। রিহ্যাবের নির্মাণাধীন বিল্ডিংয়ের মধ্যে মশকের লার্ভা পাওয়া যাচ্ছে। সুতরাং সেটিকে নির্মূল করার জন্য কর্তৃপক্ষের যে নিষ্ক্রিয়তা যেটি সে বিষয়ে মূলত একটি সুপারিশ করা হয়েছে।
 
বাংলাদেশ সুপ্রীম কোর্টের সিনিয়র আইনজীবী খুরশিদ আলম খান বলেন, আমি মনে করি এই রিট পিটিশনটি যে তদন্ত রিপোর্ট ইতোমধ্যে চলে আসছে এটি জরুরি ভিত্তিতে শুনানি হওয়া দরকার। কিছু নির্দেশনা আসছে, ডেঙ্গু পরিস্থিতি সেটা অনেক ইফেক্টিভ হবে এতে দুই সিটি করপোরেশন ও সরকার একটা গাইড লাইন পাবে।

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Stay Connected

22,042FansLike
0FollowersFollow
0SubscribersSubscribe
- Advertisement -

Latest Articles