শনিবার, জুলাই ২৪, ২০২১

জুলাইয়ের আগে ভারতীয় টিকা পাবে না প্রতিবেশীরা

গত এপ্রিল মাস থেকে বন্ধ থাকা টিকা সরবরাহ পুনরায় শুরু করতে আগ্রহী নয়াদিল্লি। ভারত সরকার প্রতিবেশি দেশগুলিকে নিয়মিত এমন আশ্বাস দিয়ে আসছে। দেশের অভ্যন্তরে টিকার চাহিদা মিটিয়ে নয়াদিল্লি জুলাইয়ের শেষে বা আগস্টে বাংলাদেশ, শ্রীলঙ্কা এবং নেপাল ও যে সব দেশ টিকা কিনেছিল এবং এখন স্থগিত অবস্থায় রয়েছে তাদের টিকার চালান সরবরাহ করবে। অনুদান হিসাবে ভারত থেকে টিকা প্রাপ্তিতে ভুটানকে অগ্রাধিকার দেওয়া হবে।

‘ভ্যাকসিন মৈত্রী’ শিরোনামের এ উদ্যোগে গত ২০ জানুয়ারি থেকে বিশ্বের বৃহত্তম টিকা উৎপাদক ভারত অনুদানের পাশাপাশি বাণিজ্যিক চালানের জন্য বিদেশে কভিড টিকা পাঠানো শুরু করে। এদিকে ভারত টিকা রপ্তানি স্থগিত করার সঙ্গে সঙ্গে চীনের পাশাপাশি রাশিয়াও দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলিতে তাদের কভিড টিকা রপ্তানির জন্য পদক্ষেপ নিয়েছে।

সূত্রমতে, নরেন্দ্র মোদি সরকার বিশ্বাস করে যে ভারত যদি কভিড -১৯ টিকার রেকর্ড সংখ্যা বজায় রাখতে পারে তবে এটি আগস্টের মধ্যে এমন একটি অবস্থানে পৌঁছে যাবে যাতে অন্যান্য দেশে টিকার চালান পুনরায় চালু করা যেতে পারে।

গত সোমবার আমরা যে পরিমান টিকা উৎপাদন হতে দেখেছি সেই সংখ্যা অব্যাহত থাকলে সরকার প্রত্যাশা করে যে ৪০ শতাংশ জনগণ আগস্টের মধ্যে টিকার আওতাভুক্ত হবে। তবে টিকা পাঠানোর জন্য অবশ্যই আমরা দায়বদ্ধ।

সূত্র আরো জানায়, রপ্তানি আবার শুরু করা হলে, এটি কেবলমাত্র প্রতিবেশী অঞ্চলেই দেওয়া হবে। যেহেতু তারা “শীর্ষস্থানীয় অগ্রাধিকারের” অওতায়, এবং তাদের কেউ কেউ ভারত থেকে টিকা সংগ্রহের জন্য অর্থও দিয়েছে।

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Stay Connected

22,042FansLike
0FollowersFollow
0SubscribersSubscribe
- Advertisement -

Latest Articles